সেদিন ১১ জন পন্টিং খেললেও রক্ষা পেত না বাংলাদেশ’

সবশেষ উইন্ডিজ সফরে সাদা পোষাকের ক্রিকেটে নাজেহাল হয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। যা ছিল বাংলাদেশ দলের প্রধান কোচ স্টিভ রোডসের প্রথম মিশন। প্রথম মিশনে টেস্ট সিরিজের হোয়াইটওয়াশের লজ্জায় পড়তে হয়েছিল তাঁর দলকে। এবার, সামনে আরেকটি টেস্ট সিরিজ।

 

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে এই সিরিজেও মনে করিয়ে দিয়েছে আরও চার ইনিংস আগে অ্যান্টিগায় ৪৩ রানে অল আউট হওয়ার স্মৃতি। অবশ্য বাংলাদেশ দলের কোচ স্টিভ রোডস জানিয়েছেন, অ্যান্টিগার পিচ এবং টস তাঁর দলের পক্ষে না আসার কারণেই এই বিপর্যয় হয়েছে। সেখানে ১১ জন রিকি পন্টিং থাকলেও তার দল ১০০ সংগ্রহ করত বলে মত তাঁর।

‘আমরা সেখানে মাত্র ৪৩ রানে অলআউট হয়েছি। সেটি ছিল অনেক খারাপ পারফর্মেন্স অবশ্যই। তবে সত্যি কথা বলতে আমাদের যদি ১১ জন রিকি পন্টিং থাকতো তাহলে হয়তো আমরা ১০০ রান করতে পারতাম। এতটাই কঠিন ছিল সেই পিচটি এবং টসও অনেক গুরুত্বপূর্ণ ছিল। সুতরাং শেষ পর্যন্ত বিপর্যয় দেখতে হয়েছে আমাদের। এটি ছিল অনেক বেশি কঠিন কন্ডিশন এবং বিশ্বের অনেক সেরা খেলোয়াড়ও সেখানকার উইকেটে গলদঘর্ম হতো।’

তবে উইন্ডিজ সফরে আরও ভালো করা সম্ভব ছিল বলেও বিশ্বাস রোডসের। ঘরের মাঠে বাংলাদেশ দল বরাবরই বেশ শক্ত দল যেকোনো প্রতিপক্ষের জন্য। এবার, দেশের বাইরেও টাইগারদের ভালো দল হিসেবে গড়ে তুলতে চান তিঁনি।

‘তবে আমি কোন অজুহাত দিচ্ছি না, আমরা আরও ভাল করতে পারতাম। তবে একজন কোচ হিসেবে আমি একজন শিক্ষক এবং আমি সুযোগ দেয়ার পক্ষে। এখন দেখা যাক এই ব্যাটসম্যানেরা কিরূপ করে। আশা করি তাঁরা শুধু বাংলাদেশেই নয়, বাইরেও ভাল করবে।’

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

Leave a Reply

Close Menu